সরকার এবার আপনার হোয়াটসঅ্যাপ মেসেজ পড়বে , লিংকে ক্লিক করে বিস্তারিত পড়ুন

গোটা দেশটাই কি ‘নজরবন্দি রাষ্ট্র’ হয়ে যাচ্ছে! নরেন্দ্র মোদী সরকারের দিকে এমনই কড়া মন্তব্য ছুঁড়ে দিল দেশের শীর্ষ আদালত। আর এর নেপথ্যে রয়েছেন তৃণমূল কংগ্রেসের বিধায়ক মহুয়া মৈত্র।

কেন্দ্রীয় সরকার অনলাইন তথ্য সংগ্রহের জন্য একটি সোশ্যাল মিডিয়া হাব তৈরির পরিকল্পনা করেছে। তার জন্য টেন্ডারও ডাকা হয়ে গেছে। সেই টেন্ডার খোলা হবে ২০ অগস্ট।

এই হাব নিয়েই আপত্তি উঠেছে। এই হাবের মাধ্যমে সরকার নাগরিকদের হোয়াটসঅ্যাপ মেসেজের উপর নজর রাখতে চাইছে। এর বিরুদ্ধেই সুপ্রিম কোর্টে গিয়েছেন মহুয়া।

শুক্রবার মহুয়ার আবেদনের শুনানি করতে গিয়ে প্রধান বিচারপতি দীপক মিশ্রর বেঞ্চ বলে, ‘‘সরকার নাগরিকদের হোয়াটসঅ্যাপ মেসেজের উপর নজরদারি করতে চাইছে। এ তো নজরবন্দি রাষ্ট্র তৈরি করার মতো।’’

এ ব্যাপারে ৩ অগস্টের মধ্যে মোদী সরকারের বক্তব্য জানতে চেয়েছে আদালত। আর তৃণমূল বিধায়ক মহুয়া মৈত্রের অভিযোগ, ‘‘এই হাবের মাধ্যমে সবার ব্যক্তিগত তথ্য হাতাতে চাইছে সরকার। আর একটি বেসরকারি সংস্থার হাতে কেন আমাদের ব্যক্তিগত তথ্য জমা হবে?’’

ছবি

 

কেন্দ্রীয় সরকার একটি বেসরকারি সংস্থার হাতেই এই হাব চালানোর দায়িত্ব দিতে চায়। তার উপর এই প্রকল্পের সফটওয়্যার সরবরাহের জন্যও টেন্ডার চাওয়া হয়েছে বেসরকারি সংস্থাগুলির কাছেই।

এই সোশ্যাল মিডিয়া হাবের মাধ্যমে ঠিক কী করতে চায় তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রক, তা স্পষ্ট হয়ে যাবে ৩ অগস্ট পরবর্তী শুনানির দিন।

source : ebela

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *